• ঢাকা
  • রবিবার, ১৪ই জুলাই, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ, ৩০শে আষাঢ়, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
প্রকাশিত: ২ ডিসেম্বর, ২০২২
সর্বশেষ আপডেট : ২ ডিসেম্বর, ২০২২
Designed by Nagorikit.com

বাকই উত্তরে নৌকা প্রতীকের প্রার্থীতা পরিবর্তনের প্রতিবাদে মিজানুর রহমানের সংবাদ সম্মেলন

কুমিল্লা জার্নাল

গাজী মামুন, লালমাই, কুমিল্লা।

 

আগামী ২৯ ডিসেম্বর অনুষ্ঠিতব্য কুমিল্লা লালমাই উপজেলাধীন ৯নং বাকই উত্তর ইউপি নির্বাচনে চেয়ারম্যান পদে আওয়ামীলীগের একক প্রার্থী হিসেবে দলীয় মনোনয়ন দেয়া হয়েছিল ইউনিয়ন আ’লীগের সাধারণ সম্পাদক মোঃ মিজানুর রহমানকে। কিন্তু গত ২৭ নভেম্বর রাতে ঢাকাস্থ একটি বিশেষ চক্রের সহযোগিতায় তাঁর পরিবর্তে বর্তমান চেয়ারম্যান মোঃ আইউব আলীকে মনোনয়ন দেয়ার প্রতিবাদে সংবাদ সম্মেলন করেছে চেয়ারম্যান প্রার্থী মিজানুর রহমান।

 

বৃহস্পতিবার (১ ডিসেম্বর) বিকেলে স্থানীয় একটি রেস্টুরেন্টে এ সংবাদ সম্মেলনের আয়োজন করা হয়।

 

সংবাদ সম্মেলনে লিখিত বক্তব্যে মিজানুর রহমান বলেন, গত ১২ নভেম্বর বিকেলে বাকই উত্তর ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সভাপতি দেলোয়ার হোসেনের সভাপতিত্বে নুরপুর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় মিলনায়তনে আওয়ামীলীগের একক প্রার্থী মনোনয়নের লক্ষে ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের বর্ধিত সভা অনুষ্ঠিত হয়। এতে উপস্থিত ছিলেন জেলা আওয়ামীলীগের সহ-সভাপতি গোলাম সারওয়ার সহ উপজেলা আওয়ামীগের সভাপতি-সাধারণ সম্পাদক ও ইউনিয়ন নেতৃবৃন্দ।

 

সভায় আমি সহ ১১ জন প্রার্থী দলের মনোনয়ন চেয়ে নাম ঘোষণা করেন। পরদিন ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সভাপতি দলীয় মনোনয়ন প্রত্যাশী দেলোয়ার হোসেন অসুস্থ হয়ে পড়লে তিনি সহ ৮ প্রার্থী, ইউনিয়ন ও ওয়ার্ড আওয়ামীলীগের সকল নেতাকর্মী আমাকে একক প্রার্থী হিসেবে মনোনীত করে রেজুলেশন সহ জেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি অর্থমন্ত্রী আ হ ম মোস্তফা কামাল এমপির নিকট প্রেরণ করেন।

 

পরবর্তীতে ১৮ নভেম্বর (শুক্রবার) বিকেলে শিকারীপাড়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় মাঠে ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সাধারণ সভায়ও চেয়ারম্যান পদে সম্ভাব্য প্রার্থীরা ও দলের নেতাকর্মীরা বিস্তারিত আলোচনা করে আমাকে আওয়ামীলীগের একক প্রার্থী ঘোষণা করে ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের ১নং সহ-সভাপতি সফিকুর রহমান, সাধারণ সম্পাদক মিজানুর রহমান, উপজেলা আওয়ামীলীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি আবদুল মতিন মোল্লা ও সাধারণ সম্পাদক মাসুদুর রহমান ভূঁইয়া এবং জেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি, অর্থমন্ত্রী আ হ ম মোস্তফা কামাল এমপি ও সাধারণ সম্পাদক মুজিবুল হক এমপি স্বাক্ষরিত একটি চিঠি বাংলাদেশ আওয়ামীলীগের স্থানীয় সরকার এবং নির্বাচন বোর্ডের সভাপতি বরাবর প্রেরণ করেন।

 

এছাড়াও গত ২১ নভেম্বর আমি দলের সিনিয়র নেতৃবৃন্দদের সাথে নিয়ে ঢাকাস্থ বাংলাদেশ আওয়ামীলীগের দলীয় কার্যালয় হতে মনোনয়ন চেয়ে আবেদন করি এবং আমি ব্যতিত বাকই উত্তর ইউনিয়ন থেকে আর কেউ আওয়ামীলীগের মনোনয়ন চেয়ে আবেদন করেন নি। অথচ গত ২৭ নভেম্বর রাতে জানতে পারি বাকই উত্তর ইউনিয়ন পরিষদের বর্তমান চেয়ারম্যান মোঃ আইউব আলী ঢাকাস্থ একটি বিশেষ চক্রের সহযোগিতায় ইউনিয়ন, উপজেলা ও জেলা আওয়ামীলীগ নেতৃবৃন্দের সিদ্ধান্তকে উপেক্ষা করে বাংলাদেশ আওয়ামীলীগের মনোনয়ন পেয়েছেন।

 

যেহেতু আমাকে ইউনিয়ন, উপজেলা ও জেলা আওয়ামীলীগ নেতৃবৃন্দ এবং আমার শ্রদ্ধেয় অভিভাবক অর্থমন্ত্রী আ হ ম মোস্তফা কামাল এমপি একক প্রার্থী হিসেবে সুপারিশ করেছেন সেহেতু আমি স্বতন্ত্র চেয়ারম্যান প্রার্থী হিসেবে নির্বাচনে অংশগ্রহণ করবো। তাই বৃহস্পতিবার (১ ডিসেম্বর) সকালে আমি আনুষ্ঠানিকভাবে উপজেলা রিটার্নিং কর্মকর্তার নিকট মনোনয়নপত্র জমা দিয়েছি এবং দলের নেতাকর্মী ও ইউনিয়নবাসীর সম্মানার্থে আমি শেষ পর্যন্ত নির্বাচনে লড়ে যাবো। আপনারা আমাকে দোয়া ও সহযোগিতা করবেন।

 

সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের জবাবে তিনি আরো বলেন, আজকে যিনি নৌকার মনোনয়ন পেয়েছেন বলে দাবি করেন তিনি ইউনিয়ন, উপজেলা ও জেলা আওয়ামীলীগ থেকে দলীয় প্রার্থী হিসেবে লিখিত কোনো কাগজ যদি দেখাতে পারেন তাহলে আমি নির্বাচন থেকে সরে দাঁড়াবো।

আরও পড়ুন

  • কুমিল্লা এর আরও খবর