• ঢাকা
  • মঙ্গলবার, ১৬ই জুলাই, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ, ১লা শ্রাবণ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
প্রকাশিত: ২৭ ফেব্রুয়ারি, ২০২২
সর্বশেষ আপডেট : ২৭ ফেব্রুয়ারি, ২০২২
Designed by Nagorikit.com

কুমিল্লায় দাদা সখের মোটর সাইকেল কেড়ে নিল নাতির প্রাণ। 

কুমিল্লা জার্নাল
রুবেল মজুমদার ।।
নাতি কলেজে ভর্তি হয়েছে এই খুশিতে দাদা শনিবার বিকেলে একটি মোটরসাইকেল কিনে দিয়েছেন নাতিকে। সেই মোটরসাইকেল নিয়ে রোববার (২৭ ফেব্রুয়ারি) সন্ধ্যায় দুই বন্ধুসহ গোমতী নদীর পাড় গিয়েছে ঘুরতে নাতি মাফি। সজোরে চালাতে গিয়ে রাত ৯টায় আইল্যান্ডে পড়ে মোটরসাইকেল উল্টে মারাত্মক আহত হয় তিন বন্ধু। পড়ে স্থানীয়রা উদ্ধার করে হাসপাতালে নিয়ে এলে চিকিৎসক মোটরসাইকেল আরোহী কলেজ ছাত্র ফারহান আঞ্জুম মাফি(১৭)কে মৃত ঘোষনা করে। দাদার সখের মোটরসাইকেল পাওয়ার  ২৪ ঘন্টার মধ্যেই কেড়ে নিল মেধাবী এই ছাত্রের প্রাণ। অপর দুই বন্ধুও বর্তমানে হাসপাতালে চিকিৎসাধীন আছে। নিহত মাফির পিতা দৈনিক আমাদের কুমিল্লার সাহিত্য সম্পাদক কবি দীপ্র আজাদ কাজল এ কথা নিশ্চিত করেছেন।
নিহত মাফির পরিবার জানায়, মাফি এ বছর কুমিল্লা শিক্ষা বোর্ড থেকে এস এস সি পরীক্ষায় পাস করে কুমিল্লা নগরীর রেসিডেন্সিয়াল স্কুল এন্ড কলেজে একাদশ শ্রেণীতে ভর্তি হয়। নাতি কলেজে ভর্তি হওয়ার  খুশিতে তার ছোট দাদা ২৬ ফেব্রুয়ারি শনিবার তাকে একটি মোটরসাইকেল কিনে দেয়। দাদার মোটরসাইকেল পেয়ে খুশিতে দুই বন্ধুকে নিয়ে রোববার সন্ধ্যায় গোমতীর পাড় ঘুরতে যায় তারা। । এ সময় কলেজ ছাত্র মাফি মোটরসাইকেল চালাচ্ছিল। ঘুরাঘুরি করে শহরে আসার পথে রাত ৯টায়  বিবির বাজার রোডস্থ কালাপীর মাজার শরীফের সামনের আইল্যান্ডে এসে মোটরসাইকেলটি উল্টে যায়। এতে চালক মাফিসহ তার  দুই বন্ধু মারাত্মক আহত হয়। পরে স্থানীয়রা তাদের উদ্ধার করে প্রথমে কুমিল্লা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে যায়। হাসপাতালে নেয়ার পরেই কর্তব্যরত চিকিৎসক মাফিকে মৃত্যু ঘোষনা করে। মাফি কুমিল্লা নগরীর নজরুল এভিনিউস্থ এলাকার কবি দীপ্র আজাদ কাজলের এক ছেলে ও এক মেয়ের মধ্যে সবার বড়।
আহত দুই মোটরসাইকেল আরোহী হলো, নগরীর বজ্রপুর এলাকার বিল্লাল হোসেনের ছেলে মো. রাজু (১৭) ও নজরুল এভিনিউ এলাকার আমিন মিয়ার ছেলে কুমিল্লা মর্ডান স্কুলের দশম শ্রেণীর ছাত্র ইফতি। তারা বর্তমানে হাসপাতালে চিকিৎসাধীন আছে।
নিহত মাফির পিতা কবি দীপ্র আজাদ কাজল জানান, সোমবার বাদ আছর কুমিল্লা নগরীর নজরুল এভিনিউস্থ ট্রমা সেন্টার হাসপাতাল সংলগ্ন মসজিদে তার নামাজে জানাযা অনুষ্ঠিত হবে। পরে তাকে টমছমব্রিজ কবরস্থানে দাফন করা হবে।
কলেজ ছাত্র মাফির মৃত্যুতে তার এলাকায় শোকের ছায়া নেমে আসে। নগরীর বিভিন্ন পেশার নেতৃবৃন্দ কবি কাজলের বাসভবনে ছুটে যান।
কুমিল্লা কোতয়ালী মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা সহিদুল ইসলাম দূর্ঘটনায় নিহতের কথা নিশ্চিত করে বলেছেন কিভাবে মারা গেল বিস্তারিত জেনে আপনাদের জানাব।

আরও পড়ুন

  • বৃহত্তর কুমিল্লা এর আরও খবর